আইপি অ্যাড্রেস কি? আইপি অ্যাড্রেস কেন প্রয়োজন?

বিশ্বের প্রতিটি মানুষের নিজের পরিচয়ের জন্য একটি নাম আছে। এক নামে এক গ্রামে বা এক দেশে একাধিক লোক থাকতে পারে, কিন্তু প্রত্যেক মানুষের জন্যই আলাদা-আলাদা ঠিকানা থাকে। টেলিফোনের ক্ষেত্রে প্রতিটি ফোনের জন্য যেমন একটি নাম্বর আছে ঠিক তেমনই ইন্টারনেটে প্রতিটি কম্পিউটারের জন্য একটি আইডেন্টিটি থাকে যা IP (Internet Protocol) অ্যাড্রেস নামে পরিচিত। বর্তমানে ইন্টারনেট প্রোটকল ভার্সন ৪ বা IPV4 চালু আছে।


IPV4 সিস্টেমের প্রতিটি আইপি অ্যাড্রেসকে প্রকাশের জন্য মোট চারটি অকটেট (৮ বিটের বাইনারি) সংখ্যা প্রয়োজন। কাজেই সম্পুর্ন ঠিকানা প্রকাশের জন্য ৩২ বিট প্রয়োজন। প্রতিটি অকটেট ডট (.) দ্বারা পৃথক করা হয়। 

আইপি অ্যাড্রেসের প্রথম ২ টি অকটেট নেটওয়ার্ক আইডি এবং পরের দুটি অকটেট হোস্ট আইডি প্রকাশ করে।  

বাইনারি সংখ্যা মনে রাখা অসুবিধাজনক বিধায় এর সমকক্ষ ডেসিমাল সংখ্যা দিয়েও আইপি অ্যাড্রেস লেখা হয়। 10000000.10101000.00001011.00000001 আইপি অ্যাড্রেসের ডেসিমেল সমকক্ষ হলো 192.168.11.01 নিচে আইপি অ্যাড্রেসসহ একটি নেটওয়ার্ক দেখানো হলো-


ক্রমবর্ধমান নেটওয়ার্ক বিস্তৃতির কারণে IPV4 এর ৩২ বিট অ্যাড্রেস অপ্রতুল হিয়ে গেছে। এই সমস্যা সমাধানের লক্ষ্যে IPV6 নামে ১২৮ বিট আইপি অ্যাড্রেস চালু হয়েছে। IPV6 চালু হওয়ার ফলে পর্যাপ্ত আইপি অ্যাড্রেস পাওয়া যাচ্ছে।

Mr. AnTor Ali

Hello, I am Md. AnTor Ali, I share various information and tutorials on this website. If you want to know any new information about technology, you can comment on our website and share your opinion. If there is any mistake in any article written by me, you will look at it with forgiveness.

Post a Comment

Previous Post Next Post

Contact Form